বিনোদন

অভিনেতার মৃত্যুর পর বেশ কয়েকদিন অতিক্রান্ত, এবার বাবাকে নিয়ে মুখ খুললেন অভিষেকের মেয়ে সায়না

বিগত কিছুদিন যাবত অভিনেতা অভিষেক চট্টোপাধ্যায় এর মৃত্যু নিয়ে তাঁর পরিবার পরিজন থেকে শুরু করে নিকট আত্বীয় দের সবার মনই ভারাক্রান্ত রয়েছে। এখনও মেনে নিতে পারেননি কাছের মানুষেরা যে তিনি আর ইহজগতে নেই। অভিনেতার একেবারে নয়নের মনি ছিল তাঁর একমাত্র আদরের কন্যা ডল। পরিবারের প্রতি অত্যন্ত দায়িত্বপরায়ন ছিলেন অভিষেক। স্ত্রী, মেয়েকে শেষ দিন পর্যন্ত আগলে গিয়েছেন তিনি। পরিবার অন্ত প্রাণ ছিল তাঁর।

আরও পড়ুন: বাংলা সিনেমার জগতে ফের খারাপ খবর! মাতৃহারা হলেন অভিনেতা যশ

তবে কেবল অভিনেতাই নন একমাত্র মেয়ে ডল বাবাকে অত্যন্ত ভালোবাসতো। বাবা ছাড়া যেনো একমুহুর্ত চলত না। কিন্তু এই মুহূর্তে বাবা যেহেতু ইহজগতে আর নেই সেই কথা ওইটুকু মেয়ে বুঝে নিয়ে ওইটুকু বয়সেই মায়ের পাশে দাঁড়িয়েছে। বাবা না থাকায় মা কে সবসময় ছায়ার মতো করে ঘিরে রেখেছে মেয়ে ডল। বাবা চলে যাওয়ার পর থেকেই মায়ের অনেক বেশি করে খেয়াল রাখতে শুরু করেছে সে। অভিষেক চট্টোপাধ্যায় যতদিন বেঁচে ছিলেন ছোটো মেয়ের সমস্ত ইচ্ছে চাওয়া সব আবদার এক কথায় মেটাতেন। মুখে মিষ্টি হাসির সাথে চুলে চাইনিজ কাট মাত্র ১২ বছর বয়সে বাবাকে হারিয়ে শোক যে কতটা গিয়েছে তার ওপর দিয়ে মুখ দেখলেই ঠাউর করা যায়। বাবা যে জীবন দিতে ভালোবাসতেন মেয়েকে, চোখের আড়াল হতে দিতেন না।

আরও পড়ুন: ‘ব‍্যোমকেশ বাবু, তুমি বড্ড তাড়াতাড়ি চলে গেলে!’ – বাংলা ছবির নায়িকা স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায় এর প্রথম ছবির নায়ককে এখনও মনে রেখেছেন তিনি

২৪ মার্চ মারা যাওয়ার আগের মুহূর্ত পর্যন্ত মেয়ের খবর নিয়েছিলেন এর থেকেই বোঝা যায় মেয়ে অন্ত প্রাণ ছিলেন অভিষেক। সবাইকে কাঁদিয়ে হঠাৎ করেই একটা স্বতস্ফূর্ত প্রাণ নিঃশেষ হয়ে গেলো। টলিউড ইন্ডাস্ট্রি থেকে তাঁর ভক্তরা এখনও যেনো মেনে নিতে পারছেন না অভিষেকের এভাবে অকালে চলে যাওয়া টাকে। অভিষেকের একমাত্র মেয়ে সাইনা দক্ষিণ কলকাতার একটি নামি বিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেন। বাবা যেমন ভাবে জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত অভিনয়কে ভালোবেসে এগিয়ে গিয়েছিলেন সেভাবেই মেয়ের ইচ্ছে অভিনয়ের সাথে যুক্ত হওয়া। সেই সঙ্গে অভিনেতার স্ত্রী সংযুক্তা চেয়েছেন বাবার আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে মেয়েও যেনো অভিনয় জগতে এগিয়ে যায়। সংযুক্তা মনে করেন, বাবার মতো মেয়েও একদিন অভিনয় জগৎ এ যোগ্য জায়গা করে নেবে।

রবিবার ছিল অভিনেতার পারলৌকিকের কাজ যেখানে টলিউড ইন্ডাস্ট্রি থেকে বহু অভিনেতা অভিনেত্রীরা উপস্থিত হয়েছিলেন তাঁকে শেষ শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করতে। তাঁদের মধ্যে ছিলেন পরিচালক তথা বিধায়ক রাজ চক্রবর্তী, অভিনেতা অঙ্কুশ হাজরা, বন্ধু কৌশিক বন্দোপাধ্যায়, লাবনী সরকার প্রমুখ।

Related Articles

Back to top button