বিনোদন

‘বিকিনি পরতে গেলে চেহারা মানানসই হওয়া চাই’! বিকিনিতে উষ্ণতার পারদ চড়াতে পারছে না টলিপাড়া? বিকিনির জন্য শরীর হলো দীপিকা দিশার! আর শ্রাবন্তী, নুসরত, ত্রিধা? মুখ খুললেন রুক্মিণী, টোটা, অরুণিমা

বলিউডে চোখ রাখলেই দেখা যাবে অভিনেত্রীদের বিকিনি লুক। তাদের সেই মোহময়ী লুকে মত্ত হয়ে আছে অনুরাগীরা। তবে এখন চর্চা চলছে আরও একটি বিষয়ের। বলিউডের মত টলিউডের নায়িকাদের কি এমন মোহময়ী লুকে দেখতে পাওয়া যাবে না বিকিনিতে? বিকিনি লুকে তাদের চর্চা কেন কম হয়? এ বিষয়ে মুখ খুললেন রুক্মিণী মৈত্র, টোটা রায়চৌধুরী, অরুনিমা ঘোষ।

বিকিনি লুক সম্পর্কে রুক্মিনীর বক্তব্য, “দীপিকা পাড়ুকোন শুধু বিকিনি নয়, ত্বকচর্চা করলেও খবর হয়। কারণ, মুম্বই সংবাদমাধ্যম ওঁত পেতে থাকে ওঁদের পোস্ট দেখে খবর করার জন্য। সেই জায়গা থেকে বাঙালি নায়িকারাও তাঁদের মতো করে ছবি দিচ্ছেন। কিন্তু ওঁদের মতো করে হয়তো পৌঁছতে পারছেন না। ফলে, ওঁদের নিয়ে যে রকম হইহই হচ্ছে টলিউডের নায়িকাদের নিয়ে সেই হইচই নেই। একটি ছবি পোস্ট করলে তিন দিন পরে সবার নজর পড়ে। এটা কম চর্চার অন্যতম কারণ”। এছাড়াও অভিনেত্রী বলেন বলিউডের মত টলিউডের ছবিতে বিকিনি পড়ে অভিনয় করার সুযোগ নেই। তার চোখে টলিউডের বিকিনি লুক বলতে তিনি শর্মিলা ঠাকুরের পর নাম নিলেন স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়ের। যিনি সব রকম পোশাকেই সমান মোহময়ী।

বর্তমানের ফেলুদা অর্থাৎ টোটা রায়চৌধুরীকে এই বিষয় নিয়ে জিজ্ঞাসা করলে তিনি বলেন, “এটা আর নতুন কী? আমরা তো সারা ক্ষণই মুম্বইয়ের দিকে ঝুঁকে। বাংলার কদর কতটুকু করি? শরীরচর্চার জন্য মায়ানগরীর তারকাদের ২৪ ঘণ্টার প্রশিক্ষক থাকেন। বাংলার তারকাদের সেই সুযোগ নেই। তার পরেও এখানকার নায়িকারা শরীরচর্চা করে বিকিনি পরছেন সেটা প্রশংসার যোগ্য। ওঁদের পরিশ্রম, ওঁদের সাহসিকতাকে কুর্নিশ”। এছাড়াও”ভিলেন” কে জিজ্ঞাসা করা হয় যে তিনি বিকিনি পরা নায়িকার বিপরীতে অভিনয় করবেন কিনা? সে বিষয়ে তিনি বলেন, “অভিনেতা হলেও আমি সংসারী। এটা সব সময় মনে রেখেছি। তাই অকারণ সাহসী হওয়ার প্রয়োজন বোধ করিনি। তবে প্রথম সারির পরিচালক বা ভাল চিত্রনাট্য এ রকম কিছু দাবি করেন তখন বিষয়টি ভেবে দেখতেও পারি”।

“লেডি চ্যাটার্জি” অর্থাৎ অরুনিমা ঘোষ কে এই বিষয়ে প্রশ্ন করলে অভিনেত্রী জানান। বলিউড অথবা হলিউডের এই বিষয়ে তারা অনেক বেশি এগিয়ে। অভিনেত্রী মতে বলিউড এবং হলিউডের অভিনেত্রীরা খুব সহজ ভঙ্গিতেই বিকিনি পড়ে ফটোশুট অথবা বিভিন্ন সিন করতে পারেন। তাই তা মানুষের কাছে অনেক বেশি আকর্ষণীয় হয়ে ওঠে কিন্তু অভিনেত্রী অরুনিমা নিজে এমন পোশাক করতে রাজি নন। তিনি স্পষ্ট বলে দেন, “আমার চেহারা দীপিকা পাড়ুকোন বা দিশা পাটানির মতো নয়। বিকিনি পরতে গেলে শরীরের গঠন-মাপ সে রকমই হওয়া চাই। তবে পরলে মানায়। আমার সেটা নেই। ফলে, শুধু চর্চিত হওয়ার জন্য এই পোশাক পরব কেন?”

তবে এমন নয় যে টলিউডের অভিনেত্রীরা ছবি দেন না। শর্মিলা ঠাকুর থেকে মুনমুন সেন বা আজকের শ্রাবন্তী, নুসরাত, ত্রিধা এরা কিন্তু বেশ দাপিয়ে বিকিনির লাস্যময়ী লুক শেয়ার করছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। এদের মধ্যে কার ছবি লেডি চ্যাটার্জী পছন্দ করছেন জিজ্ঞাসা করলে সে বিষয়ে অভিনেত্রী বলেন, “প্রত্যেকেই তাঁদের মতো করে সুন্দর। তবে বিকিনি ফিগার অবশ্যই ত্রিধা আর সুস্মিতার। আর এক জনের কথা না বললেই নয়। তিনি মুনমুন সেন। মুনদি আমার চোখে সেরা বিকিনি-সুন্দরী”। বর্তমানে দাঁড়িয়ে টলিপাড়ার অনেক অভিনেত্রী চেষ্টা করছেন সমান সাহসী পোশাকে নিজেকে দর্শকদের সামনে তুলে ধরার।

Related Articles

Back to top button